মির্জাপুরে আওয়ামী লীগের তিন বিদ্রোহী প্রার্থী বহিষ্কার

টাঙ্গাইলের মির্জাপুরে ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগের তিন বিদ্রোহী চেয়ারম্যান প্রার্থীকে দল থেকে বহিষ্কার করা হয়েছে। দলীয় সিদ্ধান্ত অমান্য করে আসন্ন ইউপি নির্বাচনে বিদ্রোহী প্রার্থী হিসেবে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করায় তাদের দলীয় সকল পদ থেকে বহিষ্কার করা হয়েছে। গত শুক্রবার (২৭ মে) উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি-সম্পাদক স্বাক্ষরিত পত্রে এই বহিষ্কারাদেশ দেয়া হয়।

বহিষ্কৃতরা হলেন- উপজেলা আওয়ামী লীগের সাবেক বন ও পরিবেশ বিষয়ক সম্পাদক এবং আজগানা ইউনিয়ন আ.লীগের সদস্য ও বর্তমান চেয়ারম্যান মো: রফিকুল ইসলাম সিকদার, উপজেলা কৃষক লীগের সভাপতি এবং ফতেপুর ইউনিয়ন আ.লীগের সদস্য ও সাবেক চেয়ারম্যান মো. হুমায়ুন তালুকদার এবং উপজেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সদস্য ও বহুরিয়া ইউনিয়ন আ.লীগের সদস্য মো: রেজাউল করিম বাবুল। এছাড়াও উপজেলার তরফপুর ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মো: জাহাঙ্গীর আলমকে শোকজ করে দলীয় প্রার্থীর বিরুদ্ধে কাজ করার অভিযোগ এনে কারণ দর্শানোর নোটিশ দেয়া হয়েছে।

বহিষ্কারাদেশ পত্রে উল্লেখ করা হয়, বহিষ্কৃত ওই তিন নেতা আসন্ন ইউপি নির্বাচনে দলীয় মনোনয়ন চেয়ে বঞ্চিত হয়ে বিদ্রোহী প্রার্থী হিসেবে মনোনয়নপত্র দাখিল করেন। এরই ধারাবাহিকতায় স্বতন্ত্রের ব্যানারে চেয়ারম্যান প্রার্থী হয়ে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করে আওয়ামী লীগ মনোনীত নৌকা প্রতীকের প্রার্থীর বিরুদ্ধে কাজ করে যাচ্ছেন। যার পরিপ্রেক্ষিতে আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী সংসদের সিদ্ধান্ত মোতাবেক ও গঠনতন্ত্র অনুযায়ী তাদের আ.লীগের প্রাথমিক সদস্যপদ সহ দলীয় সকল পদ থেকে বহিষ্কার করা হয়েছে।

এ ব্যাপারে মির্জাপুর উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ব্যারিস্টার তাহরীম হোসেন সীমান্ত বলেন, দলীয় সিদ্ধান্তের বাইরে গিয়ে বিদ্রোহী প্রার্থী হিসেবে নির্বাচনে অংশ নেয়ায় তাদের তিনজনকে গঠনতন্ত্র মোতাবেক বহিষ্কার করা হয়েছে। আওয়ামী লীগ বা সহযোগী সংগঠন থেকেও যারা বিদ্রোহী প্রার্থীর পক্ষে বা নৌকার বিরুদ্ধে কাজ করছেন তাদের বিরুদ্ধেও অচিরেই সাংগঠনিক ব্যবস্থা নেয়া হবে।