৭০ বছর বয়সে এসে বিয়ে করে শওকত আলী যে বার্তা দিলেন

৭০ বছর বয়সে এসে বিয়ে করলেন বাগেরহাটের রামপাল উপজেলার জিগিরমোল্লা গ্রামের আলহাজ হাওলাদার শওকত আলী। তবে পাত্রীর বয়স মাত্র ৩৫ বছর। ওই পাত্রীর নাম শাহেদা বেগম। গত শনিবার তাঁদের বিয়ের অনুষ্ঠান হয়। স্থানীয় গণ্যমান্য ব্যক্তি ও দুই পরিবারের লোকজনের উপস্থিতিতে এ বিয়ে হয়।

৭০ বছর বয়সে এসে শওকত আলী সাহেবের এমন ঘটা করে বিয়ে নিয়েই নেটিজেনরা গত কয়েকদিন মেতেছিলেন। যথারীতি বাংলাদেশের ট্রেন্ড অনুযায়ী দুটো পক্ষের দেখা মিলে। এক পক্ষ শওকত আলীকে স্বাগত জানিয়েছেন আরেক পক্ষ বিষয়টিকে স্বাভাবিকভাবে নিতে পারেন নি। আরও পড়ুন – ৩ বিয়ে ক্লাবে নাম লিখিয়ে স্বস্তিতে নেই নায়িকা পূর্ণিমা

ভূয়া বিসিএস ট্যাক্স ক্যাডারঃ লক্ষ্য যার সুন্দরী মেয়েদের বিয়ের ফাঁদে ফেলা

শওকত আলী দীর্ঘদিন ধরে বাগেরহাটের রামপাল সরকারি কলেজে শিক্ষকতা করতেন। অবসরে আসার পর তিনি একাকিত্ব বোধ করতেন। একসময় পরিবারের হাল ধরতে এবং ভাইবোনদের মানুষ করতে গিয়ে সংসার করা হয়ে ওঠেনি তার। জীবনের মহামূল্যবান সময় তিনি শিক্ষকতা, ভাইবোন ও সমাজসেবায় ব্যয় করেছেন। তাকে বিয়ের কথা বলা হলেও তিনি কখনো বিয়ে করতে রাজি হচ্ছিলেন না। তিনি সারা জীবন চিরকুমার থাকবেন বলে জানাতেন।

তাদের এই অবিস্মরণীয় ভালোবাসা চিরজীবী হোক।