ক্রিকেটের নতুন সম্রাট বাবর আজমের কথা বলছি

0
51

ক্রিকেটের নতুন সম্রাট বাবর আজমের কথা বলছি। মুঘল সাম্রাজ্যের প্রতিষ্ঠাতা দিল্লীর সম্রাট বাবরের তরবারি হাতে দিল্লী শাসনের সময়টা বড্ড বেশি পুরানো, এখন সময় এসেছে নতুন বাবরের গল্প লিখার আমরাদের প্রজন্ম দেখিনি তরবারি হাতে সম্রাট বারবের সেই বীরত্বের গল্পটা,কিন্তু আমরা স্বাক্ষী হতে পেরছি পাকিস্তানের অধিনায়ক বাবরের তরবারির মত ব্যাট চালিয়ে বিশ্ব ক্রিকেট শাসন করার দৃশ্যটা।বাবর মুঘল আমলের মত শুধু উপমহাদেশে নয়, তিনি যেন চাইছেন গোটা বিশ্বক্রিকেটে শাসন কায়েম করতে।

নিঃসন্দেহে বর্তমান সময়ের সেরা ব্যাটার বাবার আজম। সে তার প্রতিভাকে কঠোর অনুশীলনের মাধ্যমে বাস্তবে ফুঁটিয়ে তুলেছেন। ব্যাট হাতে একের পর এক ধুতি ছড়াচ্ছেন তার ব্যাট যেন নায়াগ্রা ঝর্ণার অবিরত জলধারা যার শুরু আছে শেষ নেই। ফর্মেট বদলায় কিন্তু বাবের ব্যাট যেন কথা বলে যায় আপন ছন্দে। যে ছন্দ কাঁপোনি ধরায় প্রতিপক্ষের শিবিরে। লাল-কিংবা সাদা বলে ক্রিকেটের তিন সংস্করনে বাবর রয়েছেন ফর্মের তুঙ্গে।

গতরাতে সাউথ আফ্রিকান লিজেন্ড হাসিম আমলাকে পিছনে ফেলে সবচেয়ে কম ইনিংস খেলে দ্রুততম ৫০০০ রানের মাইল ফলক স্পর্শ করেছে সেই সাথে তোলে নিয়েছে ওয়ানডে ক্যারিয়ারের ১৮তম সেঞ্চুরি। দেখে নেওয়া যাক বাবর আজমের
ওডিআই ক্যারিয়ার –
ইনিংস -৯৭, রান-৫০৮৮
গড়-৫৯.৮৫, স্ট্রাইকরেট-৮৯.৩১,
সেঞ্চুরি-১৮, হাফ সেঞ্চুরি -২৬

ওয়ানডে ক্রিকেটে বাবর আজমের শেষ ১৭টি ইনিংস.. ১০৭,৫৪,৬৫,৪৯,৪,৬৯,৬৬,৯১,৫৭,৭৪,১,৭৭,১০৩,১০৫*,১১৪,৫৭,১৫৮ এতটা ধারাবাহিক বলেই অনেক দিন যাবত নাম্বার ১ ব্যাটসম্যান হিসাবে পজিশনটা একান্ত’ই নিজের করে রেখেছেন।

বাবর যেভাবে ছুঁটে চলছে, এই বাবরকে থামাবে কে? এমনি চলতে থাকলে ক্যারিয়ার শেষে কোথায় গিয়ে দাঁড়াবে? সেই প্রশ্নের উত্তরটা না হয় সময় বলে দিবে,আপাতত বাইশ গজে তার বিচরণ চলতে থাকুক। বাবরের কাভার ড্রাইভের সৌন্দয্য চোখে নেশা ধরায়,মনে প্রশান্তির পরশ বুলিয়ে দেয়, ব্যালেন্স এবং বলের উপর কন্ট্রোল করার ক্ষমতা হৃদয়ে গেঁথে রাখার মত। যতক্ষন ক্রিজে থাকে ততোখন আপনার চোখের প্রশান্তি এনে দিবে। এমন ফর্ম ধরে রাখতে পারলে নিঃসন্দেহ বলা যায় সামনে এশিয়াকাপ ও বিশ্বকাপে বাজিমাত করবে বাবর এবং তার টিম পাকিস্তান।

Celebrating Babar Azam: Top five T20I knocks

ব্যাটসম্যান বাবর যেমন সেরাদের সেরা ক্যাপ্টেন হিসাবেও কিন্তু কম যান নি। মাঠে এবং মাঠের বাহিরে সকল দায়ভার মিটিয়ে কয়জনে নিজের স্বাভাবিক খেলাটা খেলতে পারে বাবর পারেন,বরোং অধিনায়ক বাবর দায়িত্ব পেয়ে পুরো দলকে যেমনে এককরে আগলে রেখেছেন, তেমনি ব্যাট হাতে দলকে নেতৃত্ব দেন সামনে থেকে। কাপ্তানি দেখিয়ে দীর্ঘ ৩৫ বছর পর ইন্ডিয়াকে পিছনে ফেলে ওডিআই র্যঙ্কিং দলকে নিয়ে গিয়েছেন নাম্বার ওয়ানে। রেকর্ড -পরিসংখ্যান কত কিছু তার দখলে। বাইশ গজের সবুজ গালিচায় যতোদিন থাকবে সেদিনের বলবয় থেকে বর্তমান নাম্বার ওয়ান টিম পাকিস্তানের কাপ্তান হওয়া বাবরের ব্যাটের এমন উইলু ছড়িয়ে পড়ুক গোটা বিশ্বে।

আপনার মন্তব্য